Main Menu

‘শওকত ওসমান আমাদের প্রেরণার উৎস। ’- পানিসম্পদ উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক শামীম

ডেইলি প্রেসওয়াচ রিপোর্টঃ ‘শওকত ওসমান আমাদের প্রেরণার উৎস’কথাশিল্পী শওকত ওসমানের ১০৪তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে জাতীয় জাদুঘরে আলোচনা সভা
পানিসম্পদ উপমন্ত্রী এ কে এম এনামুল হক শামীম বলেছেন, ‘শওকত ওসমান আমাদের প্রেরণার উৎস। ’

শনিবার (২ জানুয়ারি) কথাশিল্পী শওকত ওসমানের ১০৪তম জন্মবার্ষিকী উপলক্ষে জাতীয় জাদুঘরে কথাশিল্পী শওকত ওসমান স্মৃতি পরিষদ আয়োজিত আলোচনা সভায় তিনি এ কথা বলেন।

জাতীয় জাদুঘরের মহাপরিচালক খোন্দকার মোস্তাফিজুর রহমানের সভাপতিত্বে বক্তব্য রাখেন কথাসাহিত্যিক আন্দালিব রাশদী, বিজ্ঞান ও শিল্প গবেষণা কেন্দ্রের চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. মো. আফতাব আলী শেখ, স্মৃতি পরিষদের সাধারণ সম্পাদক দিপু সিদ্দিকী প্রমুখ।

এনামুল হক শামীম বলেন, ‘স্বৈরাচারী আন্দোলনের সময় আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার নির্দেশে আমরা স্বাধীনতার স্বপক্ষের মানুষদের অতিথি করে অনুষ্ঠান করতাম। সেসময় শওকত ওসমানকে সরাসরি দেখি। তাকে বিভিন্ন অনুষ্ঠানে দাওয়াত করতাম। তিনি আস্তে আস্তে করে চমৎকার কথা বলতেন। তার কথা শুনলে মনে হতো, আমরা যা ভাবছি, সেটাই তিনি বলছেন। তার কথা শুনতে জাহাঙ্গীরনগর বিশ্ববিদ্যালয়ের মুক্তমঞ্চে হাজারও শিক্ষার্থী উপস্থিত হতেন। শওকত ওসমান আমাদের অহংকার, অলংকার। শুধু বাংলাদেশে নয়, সমগ্র ভারতীয় উপমহাদেশের। তিনি সাহিত্যের মধ্য দিয়ে বেঁচে থাকবেন। ’

শারীরিক অসুস্থতার কারণে অনুপস্থিত কথাশিল্পী শওকত ওসমান স্মৃতি পরিষদের সভাপতি ভাষা সংগ্রামী আহমদ রফিক এক লিখিত বক্তব্যে বলেন, ‘সততা, আদর্শনিষ্ঠ কর্মে বিশ্বাস করতেন কথাসাহিত্যিক শওকত ওসমান। নান্দনিক শিল্প সৃষ্টির সৌন্দর্যে বিশ্বাসী ছিলেন শওকত ওসমান। সম্প্রতি ভাস্কর্য ভাঙার যে অপচেষ্টা চলছে, তিনি এর প্রতিবাদ করতেন। আমরাও ভাস্কর্য ভাঙচুরের বিরুদ্ধে প্রতিবাদ জানাই শৈল্পিক সৌন্দর্য রক্ষার নান্দনিক তাগিদে। ’

আরেক লিখিত বক্তব্যে পিতৃ স্মৃতিচারণা করে ইয়াফেস ওসমান বলেন, ‘ছাত্রদের পড়ানোর পাশাপাশি নিজেও প্রচুর পড়াশোনা করতেন। এ কারণেই তার রচনা এমন তির্যক হতে পেরেছে। কখনোই ফরমায়েশি লেখা লিখে সময় নষ্ট করেননি। সাহিত্যচর্চার ক্ষেত্রেও আদর্শ থেকে বিচ্যুত হননি। পারিবারিক জীবনেও কখনো সততার বাইরে যাননি। সৎ জীবনযাপন করাটাও তার কাছ থেকেই শিখেছি। আর সাহিত্য রচনার ক্ষেত্রে তার মূল বিষয় ছিলো সাধারণ মানুষ। এর কারণ তিনি নিজেও জন্মেছিলেন দরিদ্র পরিবারে। তাই সাহিত্যের মাধ্যমে প্রান্তিক মানুষের সেই জীবন সংগ্রামের কথা তুলে ধরেছেন। ’

কথাশিল্পী শওকত ওসমান স্মৃতি পরিষদের সাধারণ সম্পাদক দিপু সিদ্দিকী বলেন,স্বদেশের প্রতি দায়বোধ থেকেই কলম ধরেছিলেন সমাজমনস্ক সব্যসাচী লেখক কথাশিল্পী শওকত ওসমান । একদিকে যেমন ধর্মান্ধতাকে তুমুলভাবে আঘাত করেছেন, অন্যদিকে শোষকের বিরুদ্ধে ছিল তাঁর সোচ্চার উচ্চারণ। লেখনীর মাধ্যমে বলেছেন শোষিতের কথা। তাঁর সৃষ্টি গণজাগরণের দিশারি। কলমকে হাতিয়ার করে আমৃত্যু সংগ্রাম করেছেন দেশদ্রোহী ও রাজাকারদের বিরুদ্ধে।






Related News