Friday, April 16th, 2021

now browsing by day

 
Posted by: | Posted on: April 16, 2021

ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস আগামী কাল

শাফিউল বাশার/মাহবুবুল হক মনোয়ার, ঢাকা, ১৬ এপ্রিল, ২০২১ : আগামী কাল ১৭ এপ্রিল ঐতিহাসিক মুজিবনগর দিবস। বাংলাদেশের স্বাধীনতা সংগ্রাম এবং মুক্তিযুদ্ধের ইতিহাসে অনন্য এক দিন।
১৯৭১ সালে মুক্তিযুদ্ধ চলাকালে এদিনে মেহেরপুরের বৈদ্যনাথতলা গ্রামের আম্রকাননে স্বাধীন বাংলাদেশের প্রথম অস্থায়ী সরকার আনুষ্ঠানিকভাবে শপথ গ্রহণ করে। পরে এই বৈদ্যনাথতলাকেই ঐতিহাসিক মুজিবনগর হিসেবে নামকরণ করা হয়।
এর আগে একই বছরের ১০ এপ্রিল স্বাধীন সার্বভৌম বাংলাদেশ সরকার গঠিত হয়। এর ধারাবাহিকতায় ১৭ এপ্রিল বৈদ্যনাথতলায় এই সরকার শপথ গ্রহন করে। পরের দিন ১১ এপ্রিল বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী তাজউদ্দিন আহমেদ দেশবাসীর উদ্দেশে বেতার ভাষণ দেন, যা আকাশবাণী থেকে একাধিকবার প্রচারিত হয়। এ ভাষণে তিনি দেশব্যাপী পরিচালিত প্রতিরোধ যুদ্ধের বিস্তারিত বিবরণ তুলে ধরেন। এছাড়াও ১৭ এপ্রিল মন্ত্রিসভার শপথ গ্রহণের তারিখ নির্ধারিত হয়। তাজউদ্দিনের ভাষণের মধ্য দিয়েই দেশ-বিদেশের মানুষ জানতে পারেন বাংলাদেশের মুক্তি সংগ্রাম পরিচালনার লক্ষ্যে একটি আইনানুগ সরকার গঠিত হয়েছে। এরই পথপরিক্রমায় ১৭ এপ্রিল সকালে মুজিবনগরে আনুষ্ঠানিকভাবে শপথ গ্রহণের মাধ্যমে গণপ্রজাতন্ত্রী বাংলাদেশ সরকার প্রতিষ্ঠা লাভ করে।
১৯৭১ সালের ২৫ মার্চ কালরাতে পাকিস্তানি হানাদার বাহিনী নিরস্ত্র বাঙালির ওপর বর্বরোচিত হামলা চালানোর পর জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান গ্রেফতার হওয়ার আগে ২৬ মার্চ বাংলাদেশের স্বাধীনতা ঘোষনা করেন। পরে ১০ এপ্রিল আনুষ্ঠানিকভাবে সার্বভৌম গণপ্রজাতন্ত্র রূপে বাংলাদেশের প্রতিষ্ঠা ঘোষণা করা হয়। একই সাথে প্রবাসী সরকারের এক অধ্যাদেশে ২৬ মার্চ বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বাধীনতা ঘোষণাকে দৃঢ়ভাবে সমর্থন ও অনুমোদন করা হয়।
সদ্য প্রয়াত প্রধানমন্ত্রীর জন প্রশাসন বিষযক উপদেষ্টা এইচটি ইমাম মুজিবনগর সরকারের মন্ত্রী পরিষদ সচিব হিসাবে দায়িত্ব পালন করেছিলেন। তিনি এক সাক্ষাতকারে জানিয়েছেন, ১০ এপ্রিল পাকিস্তানের নির্বাচিত জাতীয় এবং প্রাদেশিক পরিষদ সদস্যরা ভারতের পশ্চিমবঙ্গের একটি গোপন স্থানে মিলিত হয়ে প্রবাসী সরকার গঠন করেন। এতে বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান রাষ্ট্রপতি এবং সৈয়দ নজরুল ইসলামকে উপ-রাষ্ট্রপতি (অস্থায়ী রাষ্ট্রপতি) নির্বাচিত করা হয়। সৈয়দ নজরুল ইসলাম পরে তাজউদ্দিন আহমদকে প্রধানমন্ত্রী নির্বাচিত করেন।
মন্ত্রী সভার অন্য সদস্যরা হলেন, এম মনসুর আলী (অর্থ বাণিজ্য ও শিল্প) এবং এ এইচ এম কামারুজ্জামান (স্বরাষ্ট্র, সরবরাহ, ত্রাণ, পুনর্বাসন ও কৃষি)। পরবর্তি সময়ে বঙ্গবন্ধুর মন্ত্রীসভার সবচেয়ে ঘৃনিত ব্যক্তি খন্দকার মোশতাক আহমদও (পররাষ্ট্র , আইন ও সংসদ) মন্ত্রী সভার সদস্য ছিলেন। জেনারেল আতাউল গনি ওসমানী অস্থায়ী সরকারের মুক্তিবাহিনীর প্রধান কমান্ডার এবং মেজর জেনারেল আবদুর রব চীফ অব স্টাফ নিযুক্ত হন। মুজিবনগর সরকারকে ১৫টি মন্ত্রণালয় ও বিভাগে ভাগ করা হয়। এছাড়া কয়েকটি বিভাগ মন্ত্রিপরিষদের কর্তৃত্বাধীনে থাকে। প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয় যুদ্ধরত অঞ্চলকে ১১টি সেক্টরে বিভক্ত করে প্রতিটিতে একজন করে সেক্টর কমান্ডার নিয়োগা করা হয়। তবে ১০নং বা নৌ সেক্টরে কোন সেক্টর কমান্ডার ছিল না, কমান্ডোরা যখন যে এলাকায় অভিযান করতেন সে সেক্টরের কমান্ডারের অধীনে থাকত। এ ছাড়াও জেড ফোর্স, কে ফোর্স ও এস ফোর্স নামে তিনটি ব্রিগেড গঠন করা হয়। মেহেরপুরের সীমান্তবর্তী গ্রাম বৈদ্যনাথতলায় শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠান পরিচালনা করেন আবদুল মান্নান এম.এন.এ এবং স্বাধীনতার ঘোষণাপত্র পাঠ করেন অধ্যাপক ইউসুফ আলী এম.এন.এ। নবগঠিত সরকারের অস্থায়ী রাষ্ট্রপতি সৈয়দ নজরুল ইসলামকে এখানে গার্ড অব অনার প্রদান করা হয়।
পবিত্র কুরআন তেলাওয়াতের মধ্যদিয়ে শুরু হয়েছিল মুজিবনগর সরকারের শপথ অনুষ্ঠান। আর সেই অনুষ্ঠানে পবিত্র কুরআন তেলাওয়াত করেছিলেন ১৭ বছরের এক কিশোর মো. বাকের আলী। যিনি কয়েক বছর আগে কলেজ শিক্ষকতা থেকে অবসর নিয়েছেন। সেদিন কোন পরিস্থিতিতে কিভাবে তিনি এই দায়িত্বটি পালন করেছিলেন তার বর্ণনা দিয়েছেন এভাবে।
বাকের আলী তার জীবনের সর্বশ্রেষ্ঠ মুহূর্তটির স্মৃতিচারণ করতে গিয়ে বেশ আবেগাল্পুত হয়ে পড়েন। তিনি বলেন, ১৯৭১ সালে তিনি দর্শনা কলেজের প্রথম বর্ষের ছাত্র ছিলেন। বঙ্গবন্ধু স্বাধীনতা ঘোষণা করলে বিহারী অধ্যুষিত দর্শনায় থাকা ঝুঁকিপূর্ণ হয়ে ওঠে। সুযোগ বুঝে দীর্ঘ পথ পায়ে হেঁটে ১৬ এপ্রিল বিকেলে বর্তমান মুজিবনগর উপজেলার গৌরীনগর গ্রামের নিজ বাড়িতে চলে আসেন।
তিনি বলেন, ‘ওই দিন রাতে শুনলাম ১৭ এপ্রিল বৈদ্যনাথতলায় এক সভা অনুষ্ঠিত হবে। কিসের সভা, কি উদ্দেশে হবে সবকিছুই রয়ে গেল অজানা। সকালে আমরা কয়েকজন বন্ধু মিলে পায়ে হেঁটে সভাস্থলে পৌঁছে গেলাম। আমার স্কুল শিক্ষক দোয়াজউদ্দিন স্যার সেখানে ছিলেন। তিনি আমার হাত ধরে বলেন, আমাকে এ অনুষ্ঠানে কুরআন পাঠ করতে হবে।’ এ প্রসঙ্গে বাকের আলীর শিক্ষক দোয়াজউদ্দিন বলেন, ‘বাকের স্কুলের বিভিন্ন অনুষ্ঠানে সুললিত কন্ঠে কুরআন তেলোয়াত করতো। এ ছাড়াও সে ছিল ধর্মভীরু। তাই শপথ গ্রহণ অনুষ্ঠানে তাকেই টেনে নিয়েছিলাম।’
এদিকে ১৭ এপ্রিল মুজিব নগর সরকারের মন্ত্রীরা শপথ নিলেও ১৮ এপ্রিল মন্ত্রী পরিষদের প্রথম সভায় মন্ত্রীদের দপ্তর বন্টন করা হয়। মুজিব নগর সরকারের সফল নেতৃত্বে ৯ মাসের সশস্ত্র মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে ১৯৭১ সালের ১৬ ডিসেম্বর বাংলাদেশ বিজয় অর্জনের মধ্যদিয়ে স্বাধীনতা লাভ করে। শুধু ত্ইা নয়, স্বাধীন সার্বভৌম বাংলাদেশের এই প্রথম সরকারের কুটনৈতিক প্রচেষ্টায় জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ১৯৭২ এর ১০ জানুয়ারি পাকিস্তানের কারাগার থেকে মুক্ত হয়ে স্বদেশ প্রত্যাবর্তন করেন। এর আগে ভারত এবং ভুটান এই সরকারকে স্বীকৃতি দেয়।

Posted by: | Posted on: April 16, 2021

ব্রাজিলে এক দিনে করোনায় ৩,৫৬০ জনের মৃত্যু

সাও পাওলো, ১৬ এপ্রিল, ২০২১ (প্রেসওয়াচ ডেস্ক) : ব্রাজিলে বৃহস্পতিবার গত ২৪ ঘণ্টায় কোভিড-১৯ রোগে নতুন করে আরো তিন হাজার ৫৬০ জন প্রাণ হারিয়েছে। এনিয়ে দেশটিতে মহামারী এ ভাইরাসে মৃতের সংখ্যা বেড়ে মোট তিন লাখ ৬৫ হাজার ৪৪৪ জনে দাঁড়ালো। খবর সিনহুয়ার।
ব্রাজিলের স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের পরিসংখ্যান অনুযায়ী, দেশটিতে গত ২৪ ঘণ্টায় করোনায় নতুন করে আরো ৭৩ হাজার ১৭৪ জন আক্রান্ত হয়েছে। এনিয়ে ব্রাজিলে মোট সংক্রমণের সংখ্যা বেড়ে এক কোটি ৩৭ লাখ ৪৬ হাজার ৬৮১ জনে দাঁড়ালো।
ব্রাজিলে গত জানুয়ারির পর থেকেই করোনাভাইরাস সংক্রমণের নতুন ঢেউ লক্ষ্য করা যাচ্ছে। এতে আক্রান্তের সংখ্যা অনেক বেড়ে যাওয়ায় দেশটির বিভিন্ন রাজ্যে তাদের স্বাস্থ্যসেবা ব্যবস্থা একেবারে ভেঙ্গে পড়ে।
এ মহামারী ভাইরাসে মৃত্যুর সংখ্যার দিক থেকে ব্রাজিল বিশ্বের দ্বিতীয় সর্বোচ্চ ক্ষতিগ্রস্ত দেশ। এক্ষেত্রে কেবলমাত্র এখন যুক্তরাষ্ট্র ব্রাজিলের সামনের সারিতে রয়েছে।

Posted by: | Posted on: April 16, 2021

ফ্রান্সে করোনায় মৃত্যু সংখ্যা ১০০,০০০ ছাড়িয়েছে : স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ

প্যারিস, ১৬ এপ্রিল, ২০২১ (প্রেসওয়াচ ডেস্ক) : ফ্রান্সে কোভিড-১৯ রোগে মৃতের সংখ্যা বেড়ে বৃহস্পতিবার এক লাখ ছাড়িয়ে গেছে। গত ২৪ ঘণ্টায় দেশটিতে নতুন করে আরো ৩শ’ জন প্রাণ হারানোয় এ সংখ্যা এক লাখ অতিক্রম করলো। দেশটির স্বাস্থ্য কর্তৃপক্ষ একথা জানিয়েছে। খবর এএফপি’র।
খবরে বলা হয়, মাত্র এক দিন আগে বুধবার মহামারীর শুরু থেকে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৯৯ হাজার ৮০৫ জনে দাঁড়িয়েছিল।
যুক্তরাজ্য ও ইতালির পর করোনাভাইরাসে মৃতের সংখ্যা এক লাখের মাইলফলক অতিক্রম করা ইউরোপে তৃতীয় দেশ হচ্ছে ফ্রান্স।
মহামারী করোনাভাইরাসে মৃত্যুর দিক থেকে যুক্তরাষ্ট্র হচ্ছে বিশ্বের সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত একটি দেশ। দেশটিতে এ পর্যন্ত কোভিড-১৯ রোগে মৃতের সংখ্যা বেড়ে পাঁচ লাখ ছাড়িয়ে গেছে। এদিক থেকে যুক্তরাষ্ট্রের পরের অবস্থানে রয়েছে ব্রাজিল।
বর্তমানে ফ্রান্স কনোনাভাইরাস সংক্রমণের তৃতীয় ঢেউ মোকাবেলা করছে। দেশটিতে নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্রে রোগির সংখ্যা পাঁচ হাজার ৯০০ ছাড়িয়ে গেছে। ২০২০ সালের বসন্তের পর থেকে এ সংখ্যা সর্বোচ্চ।

Posted by: | Posted on: April 16, 2021

করোনায় এ পর্যন্ত ৯০ পুলিশ সদস্যের মৃত্যু

দিপু সিদ্দিকীঃ দেশে করোনা সংক্রমণ শুরুর পর থেকে বৃহস্পতিবার (১৫ এপ্রিল) পর্যন্ত ৯০ পুলিশ সদস্য প্রাণ হারিয়েছেন। আইন শৃঙ্খলা রক্ষার পাশাপাশি করোনার বিরুদ্ধে সম্মুখ যোদ্ধা হিসেবে কাজ করতে গিয়ে এসব পুলিশ সদস্য মারা যান।

পুলিশ সদর দফতরের সূত্রে জানা যায়, দ্বিতীয় দফায় করোনা সংক্রমণ বেড়ে গেলে পুলিশ সদস্যরাও নতুন করে করোনায় আক্রান্ত হচ্ছেন। ১৫ এপ্রিল বৃহস্পতিবার পর্যন্ত সারাদেশে মোট ২০ হাজার ২৯১ জন পুলিশ সদস্য করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন।

২০২০ সালের মার্চে করোনা সংক্রমণ শুরুর পর থেকে ওই বছরের ডিসেম্বর (২০২০) পর্যন্ত করোনায় ১৮ হাজার ৮৪৪ জন পুলিশ সদস্য আক্রান্ত হয়েছেন। ওই বছরের মার্চে পুলিশ সদস্যদের আক্রান্তের খবর না পাওয়া গেলেও এপ্রিলে ৬৪৬ জনের আক্রান্ত হওয়ার খবর পাওয়া যায়। মে মাসে আশংকাজনক হারে বেড়ে চার হাজার ৫৮৪ জনে দাঁড়ায়। জুনে আক্রান্ত হন পাঁচ হাজার ৭১৫ জন। জুলাই মাসে তিন হাজার ৯১৩ জন, আগস্টে এক হাজার ৯২১ জন, সেপ্টেম্বরে ৭০৯ জন, অক্টোবরে ৪৮৮ জন, নভেম্বরে ৫৬৩ জন এবং ডিসেম্বরে ৩০৫ জন পুলিশ সদস্য।

২০২১ সালে গত সাড়ে তিন মাসে এক হাজার ৪৪৭ জন পুলিশ সদস্য করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন। এরমধ্যে জানুয়ারি মাসে ১৬২ জন, ফেব্রুয়ারি মাসে ৭৬ জন, মার্চে ৫৩২ জন এবং এপ্রিলের ১৫ দিনে ৬৭৭ জন আক্রান্ত হয়েছেন।

করোনায় আক্রান্ত পুলিশ সদস্যদের মধ্যে নারী সদস্য রয়েছেন ৮৪৩ জন। পুলিশের সঙ্গে কর্মরত আনসার সদস্য ৯৫ জন এবং সিভিল সদস্য রয়েছেন ৪৭৬ জন। বাকি ১৯ হাজার ৪৪৮ জন পুরুষ সদস্য।

পুলিশ সদর দফতরের জনসংযোগ বিভাগের এআইজি মো. সোহেল রানা  বলেন, আইন শৃঙ্খলা রক্ষার পাশাপাশি দেশে করোনা সংক্রমণ থেকে মানুষকে সেবা দিতে গিয়ে পুলিশ সদস্যরা আক্রান্ত হচ্ছেন। তবে পুলিশ সদর দফতরের পক্ষ থেকে যথযথ ব্যবস্থা গ্রহণের পর এখন আক্রান্তের হার অনেক কম।

Posted by: | Posted on: April 16, 2021

প্রবাসী কর্মীদের জন্য ফ্লাইটের অনুমতি দিলো বেবিচক

দিপু সিদ্দিকীঃ প্রবাসী কর্মীদের জন্য পাঁচটি দেশে বিমান বাংলাদেশকে ফ্লাইট পরিচালনার অনুমতি দিয়েছে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষ (বেবিচক)। আগামীকাল শনিবার (১৭ এপ্রিল) ভোর ৬টা থেকে প্রবাসী কর্মীদের জন্য পাঁচটি দেশে ফ্লাইট যাবে।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারাইন্স জানিয়েছে,  ১৭ এপ্রিল ভোর ৬টা থেকে রিয়াদ, দাম্মাম, জেদ্দা, দুবাই, আবুধাবি, মাস্কাট, দোহা ও সিঙ্গাপুরে ফ্লাইট পরিচালনা শুরু হবে।

বৃহস্পতিবার (১৫ এপ্রিল) রাতে সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে এ তথ্য জানায় বিমান।

বিমান জানিয়েছে, ১৭ এপ্রিলের ভোর ৬টার পরের শিডিউল ফ্লাইটে আসন সংরক্ষিত। যাত্রীদের করোনার নেগেটিভ সনদসহ যাত্রার ৬ ঘণ্টা আগে বিমানবন্দরে উপস্থিত হতে হবে। রিয়াদগামী ১৭ এপ্রিলেরর ফ্লাইট বিজি ৫০৩৯ ভোর ৪টার পরিবর্তে ভোর সোয়া ৬টায় ছেড়ে যাবে। বিস্তারিত তথ্যের জন্য বিমানের যেকোনও সেলস্ অফিস অথবা বিমান কল সেন্টার নম্বর ০১৯৯০ ৯৯৭ ৯৯৭ এ যোগাযোগ করার অনুরোধ করা হয়েছে।