Main Menu

জয়ের দ্বারপ্রান্তে বাইডেন, নেভাদা জিতলেই ‘ম্যাজিক ফিগার’

এরইমধ্যে ব্যাটলগ্রাউন্ড রাজ্য মিশিগানের ১৬টি ইলেক্টোরাল ভোট জিতে নিয়েছেন ডেমোক্র্যাট প্রেসিডেন্ট প্রার্থী জো বাইডেন। বার্তা সংস্থা এপি আর ফক্স নিউজের পূর্বাভাস অনুযায়ী, ২৬৪ ইলেক্টোরাল ভোট নিয়ে অবস্থান করছেন জয়ের দ্বারপ্রান্তে। এখন এগিয়ে থাকা আরেক ব্যাটলগ্রাউন্ড নেভাদায় (৬টি ইলেক্টোরাল ভোট) জয় পেলেই ২৭০ ইলেক্টোরাল ভোটের সেই কাঙ্ক্ষিত ‘ম্যাজিক ফিগার’। তবে তার প্রতিদ্বন্দ্বী প্রার্থী ক্ষমতাসীন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প শিবিরের পক্ষ থেকে এরইমধ্যে ৩টি রাজ্যের ভোট গণনা নিয়ে আপত্তি তুলে আদালতে যাওয়ার কথা জানানো হয়েছে।.

যুক্তরাষ্ট্রের স্থানীয় সময় বুধবার বিকেলে বাইডেন যখন ২৫৩ ইলেক্টোরাল ভোট নিয়ে এগিয়ে আছেন, তখন মার্কিন সম্প্রচারমাধ্যম সিএনএন’র সাংবাদিক জন কিং এক বিশ্লেষণে বলেন, ডেমোক্র্যাটিক প্রার্থী বাইডেন যদি নেভাদা ও অ্যারিজোনায় জেতেন তাহলেই তিনি প্রেসিডেন্ট হতে প্রয়োজনীয় ২৭০টি ইলেক্টোরাল ভোট নিশ্চিত করে ফেলবেন। ওই সময়ে বাইডেন দুটি রাজ্যেই এগিয়ে ছিলেন। এরইমধ্যে অ্যারিজোনায় (১১ ইলেক্টোরাল ভোট) জয় নিশ্চিত করে ফেলেন তিনি। গতবার রাজ্যটিতে জয় পেয়েছিলেন রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প।

জন কিং তার বিশ্লেষণে বলেন, নেভাদা ও অ্যারিজোনায় বাইডেনের এগিয়ে থাকা জয়ে পরিণত করে ফেলতে পারলে হওয়ার পর ব্যাটলগ্রাউন্ড রাজ্য পেনসিলভানিয়ায় জয় না পেলেও ২৭০টি ইলেক্টোরাল ভোট নিশ্চিত করে ফেলবেন। ফক্স নিউজ ও সিএনএন’র আভাস অনুযায়ী মিশিগান ও অ্যারিজোনায় জয় পাওয়ার পর বাইডেনের মোট ইলেক্টোরাল ভোটের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২৬৪টিতে। ফলে নেভাদায় জয় পেলে সেখানকার জন্য বরাদ্দ থাকা ছয়টি ইলেক্টোরাল ভোট নিয়ে প্রেসিডেন্ট হওয়ার ম্যাজিক ফিগার ছুয়ে ফেলবেন বাইডেন।

নেভাদায় বর্তমানে মাত্র দশমিক ছয় শতাংশ ভোটে এগিয়ে আছেন বাইডেন। সেখানে এখন পর্যন্ত গণনা হওয়া ভোটের ৪৯ দশমিক ৩ শতাংশ ভোট পেয়েছেন তিনি। অন্যদিকে রিপাবলিকান প্রার্থী ডোনাল্ড ট্রাম্প পেয়েছেন ৪৮ দশমিক ৭ শতাংশ ভোট। তুমুল লড়াই হওয়া এই রাজ্যটির জয়-পরাজয়ের ওপর পরবর্তী মার্কিন প্রেসিডেন্ট কে হতে যাচ্ছেন তার অনেকখানি নির্ভর করছে।

এছাড়া এখন পর্যন্ত যেসব রাজ্যের ভোটের ফলাফল পাওয়া যায়নি সেগুলোর মধ্যে আলাস্কায় রয়েছে তিনটি ইলেক্টোরাল ভোট, জর্জিয়ায় ১৬টি,  নর্থ ক্যারোলিনায় ১৫টি এবং পেনসিলভানিয়ায় ২০টি। নেভাদায় বাইডেনের জয় নিশ্চিত হওয়ার পর এগুলোর সবগুলোতেও যদি ট্রাম্প জেতেন তাহলেও তার ইলেক্টোরাল ভোট দাঁড়াবে ২৬৮টিতে। ম্যাজিক ফিগার স্পর্শ করতে পারবেন না তিনি।

তবে বাইডেন এগিয়ে থাকার সময়ই নিজেকে জয়ী দাবি করে ট্রাম্প ভোট জালিয়াতির অভিযোগ তোলেন। এরইমধ্যে মিশিগান, উইসকনসিন ও পেনসিলভানিয়ার গণনায় আপত্তি তুলে আদালতের শরণাপন্ন হওয়ার কথা জানিয়েছে ট্রাম্প শিবির।






Related News