Tuesday, July 21st, 2020

now browsing by day

 
Posted by: | Posted on: July 21, 2020

চাঁদ দেখা যায়নি, ঈদ ১ আগস্ট

দেশের আকাশে ১৪৪১ হিজরি সনের পবিত্র জিলহজ মাসের চাঁদ দেখা যায়নি। ফলে আগামী ১ আগস্ট সারা দেশে উদযাপিত হবে পবিত্র ঈদুল আজহা।

মঙ্গলবার (২১ জুলাই) সন্ধ্যায় জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির সভা থেকে এ সিদ্ধান্ত জানানো হয়। জাতীয় মসজিদ বায়তুল মোকাররমে জাতীয় চাঁদ দেখা কমিটির এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। সারা দেশ থেকে চাঁদ দেখা সংক্রান্ত তথ্য বিশ্লেষণ করে এ সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছে কমিটি।

ধর্মসচিব নুরুল ইসলামের সভাপত‌িত্বে সভায় ইসলামিক ফাউন্ডেশনের মহাপরিচালক আনিস মাহমুদসহ আলেম ওলামাসহ কমিটির সদস‌্যরা উপস্থিত ছিলেন। এ তথ‌্য নিশ্চিত করেন ইসলামিক ফাউন্ডেশনের জনসংযোগ কর্মকর্তা শায়লা শারমীন।

এদিকে সৌদি আরবসহ মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোতে পবিত্র ঈদুল আজহা উদযাপিত হবে ৩১ জুলাই। আর পবিত্র হজ অনুষ্ঠিত হবে ৩০ জুলাই। যদিও করোনা পরিস্থিতির কারণে এবার খুবই সীমীত পরিসরে হজ পালিত হবে।

Posted by: | Posted on: July 21, 2020

পদত্যাগ করলেন স্বাস্থ্য ডিজি আবুল কালাম

বিতর্ক আর সমালোচনার মুখে অবশেষে পদত্যাগ করলেন স্বাস্থ্য অধিদদফরের মহাপরিচালক (ডিজি) অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ।

মঙ্গলবার (২১ জুলাই) জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ে গিয়ে জনপ্রশাসন সচিবের কাছে নিজের পদত্যাগপত্র জমা দেন তিনি।

অধ্যাপক ডা. দ্বীন মোহাম্মদ নুরুল হক অবসরে যাওয়ার পর স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছিলেন অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ। স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালকের দায়িত্ব পাওয়ার পর তার মেয়াদ শেষ হয়ে গেলে তাকে আবার দুই বছরের জন্য চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দেয়া হয়।

বর্তমান স্বাস্থ্যমন্ত্রী জাহিদ মালেক নিজে উদ্যোগী হয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালককে এ নিয়োগ দেন। কিন্তু চুক্তিভিত্তিক নিয়োগ দেয়ার পরই তার বিরুদ্ধে চরম দায়িত্ব ও কর্তব্যে অবহেলা শৈথিল্য, পক্ষপাত এবং নানা রকম দুর্নীতির অভিযোগ উত্থাপিত হয়।

বিশেষ করে করোনা সংক্রমণের শুরুর পর থেকে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালকের সীমাহীন দায়িত্বহীনতা স্পষ্ট হতে থাকে। এর মধ্যেই স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক পরিবর্তনের প্রক্রিয়া গ্রহণ করেছিল। কিন্তু একের পর এক ব্যর্থতা দুর্নীতির অভিযোগ এবং নানা রকম অপকর্মের দায়ভার মাথায় নিয়ে শেষ পর্যন্ত পদত্যাগ করলেন স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক।

গত বুধবার (১৫ জুলাই) রিজেন্ট হাসপাতালের সঙ্গে চুক্তি নিয়ে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক (ডিজি) অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদ নিজ বক্তব্যের ব্যাখ্যা দেন। সচিবালয়ে স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব আবদুল মান্নানের কাছে লিখিত ব্যাখ্যা জমা দিন তিনি।

লিখিত ব্যাখ্যায় স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক বলেন, রিজেন্ট হাসপাতালের সঙ্গে চুক্তি করা হয়েছিল সাবেক স্বাস্থ্যসেবা বিভাগের সচিব আসাদুল ইসলামের মৌখিক নির্দেশে।

স্বাস্থ্য সচিব বলেন, মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদের কাছে জানতে চাওয়া হয়েছিল রিজেন্টের সঙ্গে চুক্তির লিখিত আদেশ এ ব্যাখ্যার সঙ্গে সংযুক্ত রয়েছে কিনা। তিনি জানান, সেই চুক্তি করা হয়েছিল সাবেক স্বাস্থ্য সচিব আসাদুল ইসলামের মৌখিক নির্দেশে। যিনি বর্তমানে পরিকল্পনা মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।

আবদুল মান্নান আরও উল্লেখ করেন, সব বিস্তারিত জানার জন্যই আমরা তার কাছে ব্যাখ্যা চেয়েছিলাম।

রিজেন্ট হাসপাতালের প্রতারণার বিভন্ন বিষয় গণমাধ্যমে প্রকাশিত হলে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক এক সংবাদ বিজ্ঞপ্তিতে জানান, মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষে নির্দেশেই অধিদফতর রিজেন্টের সঙ্গে চুক্তি করে। যা বিভিন্ন গণমাধ্যমে প্রকাশিত হলে মন্ত্রণালয়ের দৃষ্টি আকৃষ্ট হয়।

এর পরিপ্রেক্ষিতে গত ১২ জুলাই স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ডা. আবুল কালাম আজাদের কাছে ব্যাখ্যা দাবি করে স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়। স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের উপ-সচিব শারমিন আকতার জাহান স্বাক্ষরিত অফিস আদেশে ‘স্বাস্থ্য মন্ত্রণালয়ের ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষ’ বলতে স্বাস্থ্য অধিদফতরের মহাপরিচালক কী বোঝাতে চেয়েছেন, সে বিষয়ে তার কাছ থেকে ব্যাখ্যা চাওয়া হয়।

Posted by: | Posted on: July 21, 2020

‘সীমান্তে ভারত অবশ্যই প্রাণঘাতী অস্ত্র ব্যবহার করতে পারবে না’

ভারতীয় সীমান্তরক্ষী বাহিনীকে অবশ্যই সতর্ক হতে হবে এবং বাংলাদেশ সীমান্তে নন-লেথাল অর্থাৎ প্রাণঘাতী নয় অবশ্যই এমন অস্ত্র ব্যবহার করতে হবে বলে জানিয়েছেন পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন।

ভারতের প্রভাবশালী গণমাধ্যম দ্য হিন্দু মঙ্গলবার (২১ জুলাই) বাংলাদেশের পররাষ্ট্রমন্ত্রীর বরাত দিয়ে এই সংবাদ প্রকাশ করেছে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রী একে আব্দুল মোমেন বলেছেন, বাংলাদেশ সীমান্তের কোন কোন স্থানে প্রাণহানি হয় এবং বাংলাদেশি নাগরিকরা গুলিবিদ্ধ হয় তা চিহ্নিত করা হয়েছে। এ সকল চিহ্নিত স্থানে বিজিবি’র অতিরিক্ত সদস্য মোতায়েনের পরিকল্পনা করা হয়েছে।

পররাষ্ট্রমন্ত্রীর আরো বলেছেন, ভারতের বিএসএফকে আরও সতর্ক হয়ে সীমান্ত এলাকায় দায়িত্ব পালন করা উচিত। আমাদের দেশের নাগরিক আইন লঙ্ঘন করলে তাদের গ্রেপ্তার করতে পারে। কিন্তু তাদের হত্যা করা কখনোই সমর্থনযোগ্য না।

মূলত রোববার (১৯ জুলাই) আসামের করিমগঞ্জ রাজ্যে তিন বাংলাদেশি নাগরিককে হত্যার পরিপ্রেক্ষিতে মন্ত্রী এসব বলেন। করিমগঞ্জ থানা পুলিশের দাবি করেছে, বাংলাদেশি তিন নাগরিক গরু চুরি করতে ভারতে গিয়েছিলেন।

এ প্রসঙ্গে পররাষ্ট্রমন্ত্রী আরো বলেন, বাংলাদেশে চাহিদা অনুযায়ী পর্যাপ্ত গরু আছে। অন্য কোথাও থেকে গরু আমদানি করার প্রয়োজন নেই। করিমগঞ্জের ঘটনাটির তদন্ত শেষ হয়নি, সীমান্তরক্ষী ও ভারতীয় নাগরিকদের কাছে আমাদের প্রত্যাশা থাকবে তারা দ্বিপাক্ষিক সমঝোতার বিষয়গুলো ভঙ্গ করবে না।


Posted by: | Posted on: July 21, 2020

ড্রোন-খেলনা বিমান-ঘুড়ি ওড়াতেও লাগবে অনুমোদন

দেশের আকাশসীমায় ড্রোন, রিমোটলি পাইলটেড এয়ারক্রাফট সিস্টেম, রিমোট কন্ট্রোলড খেলনা বিমান, ঘুড়ির মতো বস্তু ওড়াতে অনুমোদন নিতে হবে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে।

এ ধরনের বস্তু উড্ডয়নের ৪৫ দিন পূর্বে সংস্থাটির কাছ থেকে অনুমোদন নেয়ার তাগিদ দিয়ে মঙ্গলবার (২১ জুলাই) সংবাদমাধ্যমে একটি বিজ্ঞপ্তি পাঠানো হয়েছে। অনুমোদন ছাড়া উড্ডয়নকে শাস্তিযোগ্য অপরাধ বলে উল্লেখ করা হয়েছে সেখানে।

ওই বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়, সম্প্রতি কিছু উৎসাহী ব্যক্তি, বেসামরিক প্রতিষ্ঠান ও সংস্থা (স্কুল, কলেজ, বিশ্ববিদ্যালয়, এনজিও, গবেষণা প্রতিষ্ঠান) বিনা অনুমতিতে দেশের আকাশসীমায় ড্রোন, রিমোটলি পাইলটেড এয়ারক্রাফট সিষ্টেম, রিমোট কন্ট্রোলড খেলনা বিমান, ঘুড়ি ইত্যাদি ওড়াচ্ছেন। এতে বিভিন্ন অনুমোদিত যাত্রীবাহী দেশি-বিদেশি বিমান, হেলিকপ্টার এবং দ্রুতগতির সামরিক বিমানের সঙ্গে আকস্মিক দুর্ঘটনার শঙ্কা রয়েছে।

এতে বলা হয়, এ ধরনের অননুমোদিত উড্ডয়ন রাষ্ট্রীয় নিরাপত্তার প্রতি ঝুঁকি বলে বিবেচিত হচ্ছে এবং বাংলাদেশে বিদ্যমান আইনে তা শাস্তিযোগ্য অপরাধ।

এ ধরনের বস্তু ওড়ানোর নূন্যতম ৪৫ দিন আগে বেসামরিক বিমান চলাচল কর্তৃপক্ষের ওয়েব সাইটে দেয়া নির্ধারিত ফরম অনুযায়ী লিখিত অনুমতি নিতে হবে বলে উল্লেখ করা হয় ওই বিজ্ঞপ্তিতে।

Posted by: | Posted on: July 21, 2020

পঞ্চগড়ে ট্রাক্টরের ধাক্কায় মোটর সাইকেল আরোহী নিহত

পঞ্চগড়ের বোদা উপজেলায় ট্রাক্টরের ধাক্কায় তরিকুল ইসলাম (৩৩) নামে এক মোটর সাইকেল আরোহীর নিহত হয়েছেন।

২১ জুলাই, মঙ্গলবার বিকেলে বোদা  উপজেলার বাইপাস এলাকায় এ  দুর্ঘটনাটি ঘটে। নিহত তরিকুল বোদা পৌর এলাকার জামাদার পাড়ার আমিরুল ইসলামের ছেলে।

প্রত্যক্ষদর্শীরা জানায়, বিকেলে তরিকুল বাইপাস সড়কের পাশের মসজিদে আসরের নামাজ পড়ে মসজিদ থেকে মোটরসাইকেল যোগে বাইপাস সড়কে উঠলে একটি ট্রাক্টর তাকে ধাক্কা দেয়। এতে ঘটনাস্থলেই মারা যায় তরিকুল।

বোদা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবু হায়দার মোহাম্মদ আশরাফুজ্জামান ট্রাক্টরের ধাক্কায় এক মোটরসাইকেল আরোহীর নিহতের বিষয়টি সময় নিউজকে  নিশ্চিত করেন।