Main Menu

কোন কোন দেশ পাবে মার্কিন ভ্যাকসিন?

যুক্তরাষ্ট্রের পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়ের বৈশ্বিক কোভিড-১৯ মোকাবিলা স্বাস্থ্য সুরক্ষা বিষয়ক সমন্বয়কারী গেইল স্মিথ জানান, প্রেসিডেন্ট বাইডেনের এই সপ্তাহের ঘোষণার মধ্য দিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের বৈশ্বিক মহামারি মোকাবিলার পদক্ষেপ শুরু হয়েছে।

গেইল স্মিথ জানান, যুক্তরাষ্ট্রের নিজের মজুত থেকে ২ কোটি ডোজ ও অ্যাস্ট্রাজেনেকার ৬ কোটি ডোজ, সব মিলিয়ে ৮ কোটি ভ্যাকসিন বিশ্বের কাছে হস্তান্তর করা হবে।

ভারতের জন্য মার্কিন পরিকল্পনা ও ডোজের সংখ্যার বিষয়ে জানতে চাইলে এই মার্কিন কর্মকর্তা বলেন, প্রত্যেকটি দেশের জন্য বরাদ্দ ডোজের সংখ্যা আমি বলতে পারছি না। ভারতে সংক্রমণের কথা বিবেচনায় নিলে দেশটি আমাদের কাছে বড় ধরনের অগ্রাধিকার পাবে।

তিনি আরও বলেন, সর্বত্রই ভ্যাকসিন সরবরাহে বিঘ্ন ঘটার কারণে আমরা সবগুলো অঞ্চলের খোঁজ নিচ্ছি। আমরা কোনও চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেইনি। প্রয়োজনীয়তার ভিত্তিতে এবং গুরুত্বপূর্ণ অংশীদার ও কোভ্যাক্সের সঙ্গে সমন্বয় করেই সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে।

গেইল স্মিথ জানান, ভ্যাকসিন বরাদ্দের বিষয়ে কোভ্যাক্স বৈজ্ঞানিক তথ্য সংগ্রহ করছে এবং তাদের সরবরাহ বাড়ানোর বিষয় নিশ্চিত করতে যুক্তরাষ্ট্র তাদের সঙ্গে কাজ করবে।

মার্কিন কর্মকর্তা আরও জানান, ভ্যাকসিন বিতরণের সময়সীমা নির্ভর করছে মজুতের ওপর। এছাড়া অ্যাস্ট্রাজেনেকার ৬ কোটি ডোজ বিতরণ করতে মার্কিন ওষুধ প্রশাসনের অনুমতিও লাগবে।






Related News