Main Menu

কাউকে ছাড় দেওয়ার সুযোগ নেই: ভাইয়ের বক্তব্য প্রসঙ্গে ওবায়দুল কাদের

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের তার ভাই ও নোয়াখালীর বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচনে আওয়ামী লীগের মেয়র প্রার্থী আবদুল কাদের মির্জার এক বক্তব্যের প্রসঙ্গে সাংবাদিকদের প্রশ্নের জবাবে বলেছেন, ‘দলীয় সভাপতি শেখ হাসিনা ছাড়া কেউ দলে অপরিহার্য নয়। কোনও বিশেষ ক্ষেত্রে কাউকে কোনও ধরনের ছাড় দেওয়ার সুযোগ নেই। দলের শৃঙ্খলা ভাঙার অভিযোগে যে কোনও সিদ্ধান্ত দলীয় সভাপতি নিতে পরবেন। শেখ হাসিনার ঊর্ধ্বে কেউ নয়। দল করলে সবাইকে দলের শৃঙ্খলা মেনে চলতে হবে।’

আজ বুধবার (৬ জানয়ারি) ২৩ বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ে ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ উপকমিটি আয়োজিত শীতার্তদের মাঝে শীতবস্ত্র বিতরণ অনুষ্ঠানে এসব কথা বলেন তিনি। মন্ত্রী তার সরকারি বাসভবন থেকে ভিডিও কনফারেন্সে অনুষ্ঠানে যুক্ত হন।

গত ৩১ ডিসেম্বর কোম্পানীগঞ্জের বসুরহাট পৌরভবন চত্বরে নির্বাচনি ইশতেহার ঘোষণার এক পর্যায়ে আবদুল কাদের মির্জা বলেন, ‘নোয়াখালীর মানুষজন বলে, শেখ হাসিনার জনপ্রিয়তা বেড়েছে এটা সত্য, কিন্তু জেলার রাজনীতিবিদদের জনপ্রিয়তা বাড়েনি। আপনাদের কারণে প্রতিদিন ভোট কমছে।’

তিনি বলেন, ‘বৃহত্তর নোয়াখালীতে আওয়ামী লীগের কিছু চামচা নেতা আছেন, যারা বলেন অমুক নেতা তমুক নেতার নেতৃত্বে বিএনপির দুর্গ ভেঙে গিয়েছে। অথচ সুষ্ঠু নির্বাচন হলে বৃহত্তর নোয়াখালীতে তিন-চারটা আসন ছাড়া বাকি আসনে আমাদের এমপিরা দরজা খুঁজে পাবে না পালানোর জন্য। এটাই হলো সত্য কথা। সত্য কথা বলতে হবে। আমি সাহস করে সত্য কথা বলছি।’

সভায় বক্তব্য দেওয়ার সময় আবদুল কাদের মির্জা নিজ দলীয় কাউন্সিলর প্রার্থীদের বিরুদ্ধে নানা ষড়যন্ত্র, তার ব্যানার-পোস্টার ছিঁড়ে ফেলার অভিযোগ করেন। তিনি বলেন, ‘দলীয় কাউন্সিলর প্রার্থীরা দুর্নীতিবাজ হওয়ায় ও জনদুর্ভোগ সৃষ্টি করায় একজনও নির্বাচিত হবে না, এরা সবাই দালাল।’ জেলা আওয়ামী লীগ প্রস্তাবিত কমিটিরও সমালোচনা করেন তিনি।

আবদুল কাদের মির্জা জেলা আওয়ামী লীগের প্রস্তাবিত কমিটির সহ-সভাপতি। তিনি টানা তৃতীয়বার বসুরহাট পৌরসভা নির্বাচনে দলীয় মনোনয়ন পেলেন। আগামী ১৬ জানুয়ারি দ্বিতীয় ধাপের পৌরসভা নির্বাচন অনুষ্টিত হবে






Related News