Main Menu

কিশোরীকে গণধর্ষণ, অভিযোগের ২০ মিনিটের মধ্যে ৩ ধর্ষক গ্রেফতার

খুলনায় অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে ১৫ বছরের এক কিশোরীকে গণ ধর্ষণ করা হয়েছে। মঙ্গলবার (৮ সেপ্টেম্বর) খুলনা নগরীতে ঘরে ঢুকে ওই কিশোরীর বাবা-মা ও ভাইকে অস্ত্রের মুখে জিম্মি করে রাত ১টা হতে ভোর ৪টা পর্যন্ত পালাক্রমে ধর্ষণ করে।

এ ঘটনায় ইতোমধ্যে মূলহোতাসহ অভিযুক্ত ৩ আসামিকে গ্রেফতার করেছে খুলনা মেট্রোপলিটন পুলিশের (কেএমপি) খালিশপুর থানা পুলিশ।

পুলিশ জানায়, গত মঙ্গলবার খালিশপুর মুজগুন্নী শেখপাড়া এলাকার ভাড়া বাসায় দিনমজুর মিজানুর রহমান, তার ছেলে-মেয়ে, স্ত্রীসহ ঘুমাচ্ছিলেন। এ সময় স্থানীয় রাজন (৩০), রসুল (২৬), সোহাগ (৩০), হা‌নিফ (২৫) ও জা‌কির (২৫) জোরপূর্বক ঘরে প্রবেশ করে। তখন আনুমানিক রা‌ত ১টা। ওই বা‌ড়ি‌তে পাঁচজন ঢুকে অস্ত্রের মু‌খে জি‌ম্মি ক‌রে ওই কি‌শোরী‌কে ধর্ষণ ক‌রে।

এর আগে ঘুমিয়ে থাকা দিনমজুর ও তার ছেলে-স্ত্রীকে ব্যাপক মারধর করে ধর্ষকরা। ঘর থেকে বাইরে এনে দুজন ধর্ষক তাদের জিম্মি করে রাখে। পর্যায়ক্রমে পাঁচজন ধর্ষক রাতভর ওই কিশোরীকে ধর্ষণ করে।

খালিশপুর থানা অফিসার ইনচার্জ কাজী মোস্তাক আহমেদ জানান, অভিযোগ পেয়ে তাৎক্ষণিক অভিযান চালিয়ে তিন আসামিকে গ্রেফতার করা হয়। ২০ মিনিটের মধ্যে থানা পুলিশের চৌকস অফিসাররা অভিযুক্ত মূল আসামি রাজন, রসুল ও সোহাগকে গ্রেফতার করতে সক্ষম হয়।

কেএমপির এডিসি (উত্তর) সোনালী সেন বলেন, এই মুহূর্তে আমরা ভিকটিমের চিকিৎসাকে প্রাধান্য দিচ্ছি। বর্তমানে তার শারীরিক অবস্থা শঙ্কামুক্ত। ইতোমধ্যে তিন আসামি আটক হয়েছে। তদন্ত সাপেক্ষে বিস্তারিত পরে জানানো হবে।






Related News