Main Menu

দাদির পাশেই চিরনিদ্রায় শায়িত হলেন নুসরাত

ফেনী প্রতিনিধি: ফেনীর সোনাগাজীতে দুর্বৃত্তদের আগুনে দগ্ধ মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফির জানাজা সম্পন্ন হয়েছে। হাজার হাজার মানুষের অংশগ্রহণে বৃহস্পতিবার (১১ এপ্রিল) বিকেল ৬টায় সোনাগাজী পাইলট উচ্চ বিদ্যালয়ের মাঠে জানাজা হয়।

জানাজা শেষে পারিবারিক কবরস্থানে দাদির কবরের পাশে তাকে দাফন করা হয়। বুধবার (১০ এপ্রিল) রাতে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের বার্ন ইউনিটের আইসিইউতে মারা যান নুসরাত। বৃহস্পতিবার দুপুরে ময়নাতদন্ত শেষে নুসরাতের মরদেহ স্বজনদের কাছে হস্তান্তর করা হয়। এরপর তার মরদেহ নিয়ে ফেনীর উদ্দেশে রওনা হন স্বজনরা।

উল্লেখ্য, ৬ এপ্রিল সকালে আলিম পরীক্ষা দিতে সোনাগাজী ইসলামিয়া সিনিয়র ফাজিল মাদ্রাসায় যান নুসরাত জাহান রাফি। ওইদিন নুসরাতকে পরীক্ষা কেন্দ্রের ছাদে নিয়ে বোরখাপরা চারজন তাকে মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজউদ্দৌলার বিরুদ্ধে করা শ্লীলতাহানির মামলা তুলে নিতে চাপ দেয়। নুসরাত অস্বীকৃতি জানালে তারা আগুন দিয়ে পালিয়ে যায়।

এ ঘটনায় সোমবার রাতে অধ্যক্ষ সিরাজউদ্দৌলা ও পৌর কাউন্সিলর মুকছুদ আলমসহ আটজনের নাম উল্লেখ করে সোনাগাজী মডেল থানায় মামলা করেন অগ্নিদগ্ধ রাফির বড় ভাই মাহমুদুল হাসান নোমান।






Related News