cin

প্রেসওয়াচ ডেস্কঃ

করোনাভাইরাসের টিকা নিলে বিদেশিদের ওমরাহ পালনের অনুমতি দেওয়ার ঘোষণা দিয়েছিলো সৌদি আরব। তবে দেশটির জেনারেল অথরিটি অব সিভিল অ্যাভিয়েশন করোনাভাইরাসের জন্য অনুমোদিত যেসব টিকার তালিকা দিয়েছে তাতে নেই সিনোফার্ম। ফলে বাংলাদেশে যারা সিনোফার্মের টিকা নিচ্ছেন, তাদের ওমরাহ পালনের জন্য সৌদি আরব যাত্রা বাধার মুখে পড়ে গেলো।

করোনা মহামারির কারণে দীর্ঘ দেড় বছর বিদেশিদের ওমরাহ পালনে সৌদি আরবে প্রবেশ বন্ধ ছিল। সম্প্রতি বিভিন্ন বিধিনিষেধ আরোপ করে ১ মুহররম থেকে বিদেশিদের ওমরাহ পালনের অনুমতি দেওয়া হয়। বিভিন্ন দেশ থেকে সৌদি আরবে যেতে  শুরু করেছেন ওমরাহ পালনকারীরা। তবে বাংলাদেশ থেকে ওমরাহ পালনের প্রক্রিয়া এখনও শুরু হয়নি।

২৪ আগস্ট এয়ারলাইন্সগুলোর জন্য একটি সার্কুলার জারি করেছে সৌদি আরবের সিভিল অ্যাভিয়েশন কর্তৃপক্ষ। তাতে বলা হয়েছে, ওমরাহ পালনের  জন্য যেসব যাত্রী ফ্লাইটে আসবেন, তাদের বোর্ডিং করার আগেই টিকার সনদ যাচাই করতে হবে এয়ারলাইন্সগুলোকে। একই সঙ্গে ৭২ ঘণ্টার মধ্যে পিসিআর পদ্ধতিতে করোনা পরীক্ষা করে নেগিটিভ রিপোর্ট থাকতে হবে। অনুমোদিত টিকার তালিকায় রয়েছে, ফাইজার-বায়োএনটেক, অক্সফোর্ড-অ্যাস্ট্রাজেনেকা,  মডার্না ও জনসন অ্যান্ড জনসন।

শুরুতে ওমরাহ পালনকারীদের জন্য সৌদি আরবের অনুমোদিত টিকার তালিকায় ছিল সিনোফার্ম। তবে সৌদি আরব শর্ত জুড়ে দিয়েছিল- সিনোফার্ম টিকা গ্রহণকারীরা বুস্টার ডোজ হিসেবে অন্য কোনও টিকা নিলে ওমরাহ পালনের অনুমতি পাবেন। এবার এই সুযোগও বাতিল করা হলো।

এদিকে বাংলাদেশে ব্যাপক হারে চীনের তৈরি সিনোফার্ম টিকা দেওয়া হচ্ছে। ফলে বৃহৎ একটি অংশ ওমরাহ পালনের সুযোগ পাবেন না টিকার জন্য। স্বাস্থ্য অধিদফতরের দেওয়া তথ্যমতে, ২৪ আগস্ট পর্যন্ত সিনোফার্মের টিকা দেওয়া হয়েছে মোট ১ কোটি ১ লাখ ৫৩ হাজার ১৬৮ ডোজ।  

আই/না