ugc

: বিশ্ববিদ্যালয় মঞ্জুরী কমিশনের (ইউজিসি) চেয়ারম্যান অধ্যাপক ড. কাজী শহীদুল্লাহর নেতৃত্বে একটি প্রতিনিধিদল আজ বঙ্গভবনে রাষ্ট্রপতি মোঃ আবদুল হামিদের কাছে ‘বার্ষিক প্রতিবেদন ২০২০’ পেশ করেন।
রাষ্ট্রপতির প্রেস সচিব মোঃ জয়নাল আবেদীন জানান, ইউজিসি চেয়ারম্যান প্রতিবেদনের বিভিন্ন দিক এবং ইউজিসির সার্বিক কর্মকান্ড সম্পর্কে রাষ্ট্রপতিকে অবহিত করেন। তিনি বলেন, গবেষণা কার্যক্রমকে উৎসাহিত করতে এ সংক্রান্ত বাজেট দ্বিগুণ করা হয়েছে। এবছর ৩০টি পাবলিক বিশ্ববিদ্যালয়ে গুচ্ছ পদ্ধতিতে ভর্তি পরীক্ষা সম্পন্ন হয়েছে।
ইউজিসি চেয়ারম্যান ‘স্ট্রাটেজিক প্লান ফর হায়ার এডুকেশন ২০১৮-২০৩০’ এর কার্যক্রম এগিয়ে যাচ্ছে বলে রাষ্ট্রপতিকে অবহিত করেন।
রাষ্ট্রপ্রধান বলেন, বাংলাদেশ ইতোমধ্যে স্বল্পোন্নত দেশ থেকে উন্নয়নশীল দেশে উন্নীত হয়েছে।
তিনি বলেন, “দেশের উন্নয়নের এ ধারা অব্যাহত রাখতে গবেষণার কোনো বিকল্প নেই। উন্নত বিশ্বের সাথে তাল মিলিয়ে দেশ যাতে এগিয়ে যেতে পারে সে জন্য উচ্চশিক্ষার মান বাড়ানো জরুরি।” রাষ্ট্রপতি হামিদ যুগোপযোগী কারিকুলাম প্রণয়ন ও শিক্ষার মান উন্নয়নে কার্যকর পদক্ষেপ নেয়ার জন্য বিশ্ববিদ্যালয়গুলোর প্রতি আহ্বান জানান। তিনি ইউজিসিকে উচ্চশিক্ষা প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রমে স্বচ্ছতা ও জবাবদিহি নিশ্চিত করতে ওয়াচডগ (প্রহরী) হিসেবে কাজ করার নির্দেশ দেন।
আবদুল হামিদ বিশ্ববিদ্যালয়গুলোতে শিক্ষক নিয়োগে একটি নীতিমালা প্রণয়নের তাগিদ দেন।
রাষ্ট্রপতির কার্যালয়ের সচিব সম্পদ বড়ুয়া, সামরিক সচিব মেজর জেনারেল এস এম সালাহ উদ্দিন ইসলাম, রাষ্ট্রপতির প্রেস সচিব মোঃ জয়নাল আবেদীন এবং সচিব (সংযুক্ত) মোঃ ওয়াহিদুল ইসলাম খান এ সময় উপস্থিত ছিলেন।