tap

Posted by: | Posted on: September 30, 2021

প্রেস ওয়াচ রিপোর্টঃ : ঐতিহ্য সংরক্ষণে নদী অববাহিকার অবৈধ স্থাপনা উচ্ছেদ করা হবে বলে জানিয়েছেন ঢাকা দক্ষিণ সিটি করপোরেশনের (ঢাদসিক) মেয়র ব্যারিস্টার শেখ ফজলে নূর তাপস।
আজ সাপ্তাহিক নিয়মিত পরিদর্শন কার্যক্রমের অংশ হিসেবে ঐতিহ্যবাহী আহসান মঞ্জিল ও রূপলাল হাউস সংলগ্ন রাস্তা পরিদর্শন শেষে সাংবাদিকদের তিনি এ কথা বলেন।
মেয়র বলেন, “আপনারা লক্ষ্য করেছেন যে- আহসান মঞ্জিল একটি ঐতিহ্যবাহি স্থাপনা। তার সামনে কিভাবে দখল অবস্থায় রয়েছে এবং বিআইডাব্লিউটিএ সেখানে বিভিন্ন জেটি এবং বিভিন্ন ঘাট বানিয়ে অস্বস্থিকর পরিবেশ সৃষ্টি করেছে। নদী থেকে স্থাপনার সৌন্দর্য্য দেখার সুযোগ আর নেই। এখন আমি এসেছি আমাদের ঐতিহ্যবাহী রূপলাল হাউজের সামনে। এর আগেও আমি রূপলাল হাউজের ভেতরে পরিদর্শন করেছি। আমরা এরই মাঝে জেলা প্রশাসন ও গণপূর্তকে চিঠি দিয়েছি, রূপলাল হাউজ — ঐতিহ্যবাহি স্থাপনা আমাদের কাছে হস্তন্তরের জন্য। আজ আমি সামনের দিকটা পরিদর্শনে আসলাম। আপনারা লক্ষ্য করেছেন যে, এখানে অবৈধ স্থাপনা নির্মাণ করা হয়েছে। ঘাট দখল করা হয়েছে। যে সিঁডির পাশে আমরা দাঁড়িয়ে রয়েছি সেটিও রূপলাল হাউজের অংশ ছিল। কিন্তু এখন দখল অবস্থায় আছে। সব মিলিয়ে ঐতিহ্য উপভোগ এবং সংরক্ষণ করার কোন সুযোগ দেখছিনা।”
এর আগে তিনি মৎস্য ভবন মোড়ে পথচারী পারাপার সেতু (ফুট ওভার ব্রীজ), ২৫ নম্বর ওয়ার্ডের অন্তর্বর্তীকালীন বর্জ্য স্থানান্তর কেন্দ্র (এসটিএস), ২৯ নম্বর ওয়ার্ডের ইসলামবাগ আধুনিক নগর মার্কেটের ভিত্তিপ্রস্তর স্থাপন এবং জাতীয় মৎস সপ্তাহ-২০২১ উপলক্ষে ধানমন্ডি লেকে মাছের পোনা অবমুক্ত করেন।
এ সময় অন্যান্যের মধ্যে ঢাকা-৭ আসনের সংসদ সদস্য হাজী মো. সেলিম, প্রধান নির্বাহী কর্মকর্তা ফরিদ আহম্মদ, মৎস্য ও প্রাণি সম্পদ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব শ্যামল চন্দ্র কর্মকার, প্রধান বর্জ্য ব্যবস্থাপনা কর্মকর্তা এয়ার কমডোর সিতওয়াত নাঈম, প্রধান প্রকৌশলী মো. রেজাউর রহমান, সচিব আকরামুজ্জামান, ঢাকা মহানগর দক্ষিণ আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক কাজী মোরশেদ হোসেন কামাল এবং ধানমন্ডি থানা আওয়ামী লীগের সভাপতি কামাল আহমেদ উপস্থিত ছিলেন।