Main Menu

ইসরায়েলকে আকাশপথ ব্যবহারের অনুমতি দেবে না কুয়েত

দখলদার ইসরায়েলের কোনো বিমানকে আকাশসীমা ব্যবহারের সুযোগ দেবে না কুয়েত। সরকারি সূত্রের বরাত দিয়ে দেশটির প্রভাবশালী দৈনিক আলকাবাসের এক প্রতিবেদনে এ তথ্য জানানো হয়েছে।

ইসরায়েলি বিমান সংযুক্ত আরব আমিরাতে যাওয়ার সময় কুয়েতের আকাশসীমা ব্যবহার করেছে বলে খবর প্রকাশিত হওয়ার পর দেশটি তা প্রত্যাখ্যান করেছে।

কুয়েত সরকার বলেছে, ইসরায়েলি বিমান কুয়েতের আকাশ ব্যবহার করেছে বলে যে খবর বেরিয়েছে তা ভিত্তিহীন এবং গুজব। কুয়েত কোনদিনই ইসরায়েলের কোনো বিমানকে তাদের আকাশসীমা ব্যবহার করতে দেবে না। এছাড়া কুয়েত ইসরায়েলের সঙ্গে সম্পর্কও প্রতিষ্ঠা করবে না বলে জানানো হয়েছে।

দখলদার ইসরায়েল ও সংযুক্ত আরব আমিরাতের মধ্যে গত সোমবার থেকে আনুষ্ঠানিকভাবে বিমান চলাচল শুরু হয়েছে। সৌদি আরব ইসরায়েলকে তাদের আকাশসীমা ব্যবহারের অনুমতি দিয়েছে।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের জামাতা ও জ্যেষ্ঠ উপদেষ্টা জ্যারেড কুশনার দু’দিনের সফরে সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে সৌদি আরবে পৌঁছে দেশটির ক্রাউন প্রিন্স মোহাম্মদ বিন সালমানের সঙ্গে বৈঠক করেন। ওই বৈঠকের পর সংযুক্ত আরব আমিরাত থেকে ইসরায়েলে বিমান চলাচলে নিজেদের আকাশপথ ব্যবহারের অনুমতি দেয় সৌদি।

গত ১৩ আগস্ট ইসরায়েলের সঙ্গে পূর্ণাঙ্গ সম্পর্ক প্রতিষ্ঠার ঘোষণা দেয় আরব আমিরাত। এরপর বিমান চলাচলও শুরু হয়।

প্রথম ফ্লাইটে যাত্রী হিসেবে ছিলেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের জামাতা ও উপদেষ্টা জেয়ার্ড কুশনার। এছাড়া তার সঙ্গে ছিলেন ইসরায়েলের জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা মিইর বেন শাবাত ও মার্কিন জাতীয় নিরাপত্তা উপদেষ্টা রবার্ট ও’ব্রায়ান।






Related News