Main Menu

নুসরাত হত্যা মামলায় ১৬ জন অভিযুক্ত : আজ অভিযোগপত্র দাখিল

 (বাসস) : ফেনীর সোনাগাজীর মাদ্রাসাছাত্রী নুসরাত জাহান রাফি হত্যা মামলায় ১৬ জনকে অভিযুক্ত করে আজ আদালতে অভিযোগপত্র দাখিল করা হবে বলে জানিয়েছেন পুলিশ ব্যুরো অব ইনভেস্টিগেশনের (পিবিআই) প্রধান ডিআইজি বনজ কুমার মজুমদার।
তিনি মঙ্গলবার রাজধানীর ধানমন্ডি পিবিআই সদর দফতরে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে এ কথা জানান।
সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, বুধবার অভিযোগপত্র আদালতে জমা দেওয়া হবে।
হুকুমদাতা হিসেবে মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজ-উদ-দৌলাসহ মোট ১৬ জনকে আসামি করে আদালতে জমা দেওয়ার জন্য অভিযোগপত্র চূড়ান্ত করা হয়।
সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়, নুসরাতকে সরাসরি পুড়িয়ে মারায় অংশ নেন ৫ জন। এ ছাড়া এই হত্যাকান্ডের ঘটনায় বিভিন্নভাবে জড়িতদের এ মামলায় আসামি করা হয়েছে।
আসামিদের সর্বোচ্চ শাস্তি মৃত্যুদন্ড হবে বলে বনজ কুমার মজুমদার আশাপ্রকাশ করেন। তিনি বলেন, ইতোমধ্যে এ মামলার সব আসামিকে গ্রেফতার করা হয়েছে।
অভিযুক্তরা হলেন, এসএম সিরাজউদ্দৌলা (৫৭), নুর উদ্দিন (২০), শাহাদাত হোসেন শামীম (২০), মাকসুদ আলম ওরফে মোকসুদ আল কাউন্সিলর (৫০), সাইফুর রহমান মোহাম্মদ জোবায়ের (২১), জাবেদ হোসেন ওরফে সাখাওয়াত হোসেন জাবেদ (১৯), হাফেজ আব্দুল কাদের (২৫), আবছার উদ্দিন (৩৩), কামরুন নাহার মনি (১৯), উম্মে সুলতানা ওরফে পপি ওরফে তুহিন ওরফে শম্পা ওরফে চম্পা (১৯), আব্দুর রহিম শরীফ (২০), ইফতেখার উদ্দিন রানা (২২), ইমরান হোসেন ওরফে মামুন (২২), মোহাম্মদ শামীম (২০), রুহুল আমিন (৫৫) ও মহিউদ্দিন শাকিল (২০)।
গত ২৭ মার্চ সোনাগাজী ইসলামিয়া ফাজিল মাদ্রাসার আলিম পরীক্ষার্থী নুসরাতকে যৌন নিপীড়নের দায়ে ওই মাদ্রাসার অধ্যক্ষ সিরাজ উদ্দৌলাকে আটক করে পুলিশ।
৬ এপ্রিল নুসরাতকে কৌশলে ওই মাদ্রাসার ছাদে ডেকে নিয়ে তার হাত-পা বেঁধে শরীরে আগুন ধরিয়ে দেয় দুর্বৃত্তরা। পাঁচ দিন মৃত্যুর সঙ্গে পাঞ্জা লড়ে ১০ এপ্রিল রাতে মারা যায় নুসরাত।
এ ঘটনায় নুসরাতের ভাই বাদি হয়ে একটি মামলা করেন।
গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে ১২ আসামি আদালতে ১৬৪ ধারায় স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি প্রদান করে।






Related News