Main Menu

জয়পুরহাটে সফল পেঁপে চাষি আব্দুল হালিম

জয়পুরহাট,  (বাসস) : উন্নত মানের ওষুধী গুণাগুন সমৃদ্ধ সবজি পেঁপে চাষ করে সফলতা পেয়েছেন সদর উপজেলার ভানাইকুশলিয়ার কৃষক আব্দুল হালিম।
পেঁপে বাগান ঘুরে কৃষক আব্দুল হালিম জানান, নিজের ২৫ শতাংশ জমি ও পাশের লিজ নেওয়া আরও ২ বিঘা জমিতে স্থানীয় কৃষি বিভাগের পরামর্শে পেঁপে চারা রোপণ করেন গত আগষ্ট মাসে। এতে খরচ পড়েছে ৩০ হাজার টাকার মতো। একেকটি পেঁপের ওজন সর্বোচ্চ আড়াই কেজি পর্যন্ত। এ পেঁপে বাগান থেকে এ পর্যন্ত ২ লাখ টাকার কাঁচা ও পাকা পেঁপে বিক্রি করেছেন বলে জানান চাষি আব্দুল হালিম। এ ছাড়াও সাথী ফসল হিসেবে বাগানের ভেতরে খেসারী চাষ করে এ পর্যন্ত ৪০ হাজার টাকার খেসারীর শাক বিক্রি করা হয়েছে বলেও জানান তিনি। বর্তমান বাজারেও কাঁচা পেঁপে ১৫/২০ টাকা এবং পাকা পেঁপে ৪৫/৫০ টাকা কেজি বিক্রি হচ্ছে। চাষি আব্দুল হালিম জানান, স্থানীয় কৃষি বিভাগের পরামর্শ ও সার্বিক তত্বাবধানে শাহী জাত সহ স্থানিয় উচ্চ ফলনশীল জাতের পেঁপে চাষ করে সফলতা পেয়েছেন। পেঁপে চাষে রোগবালাই কম, পাখির উপদ্রপ থেকে রক্ষা পেতে প্লাস্টিকের বস্তা দিয়ে বড় আকৃতির পেপে ঢেকে রাখা হয় বাজার মূল্য বেশি লাভের আশায়। অন্যান্য ফসলের চেয়ে পরিশ্রম কম আবার লাভ বেশি এ কারণে পেঁপে চাষ করছেন বলে জানান চাষি আব্দুল হালিম। সদর উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা বঙ্গবন্ধু জাতীয় কৃষি পদক প্রাপ্ত কৃষিবিদ সেরাজুল ইসলাম বলেন, অধিক ওষুধী গুণাগুন সমৃদ্ধ ও উন্নত মানের সবজি হচ্ছে পেঁেপ। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার নেতৃত্বাধীন কৃষি বান্ধব সরকার কৃষকদের উন্নয়নে নানা কর্মসূচী বাস্তবায়ন করছেন। সেই আলোকে মাঠ পর্যায়ে কৃষকদের আয় বর্ধন মূলক বিভিন্ন ফসল চাষে সার্বিক সহযোগিতা প্রদান করা হচ্ছে।






Related News

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *